fbpx
Ad imageAd image

কিশোরগঞ্জ-১ আসনের ভোটকেন্দ্র তে আগুন

কিশোরগঞ্জ সদরের সাদুল্লারচরের এলাকাবাসী ভোট কেন্দ্রে এসে দেখে, একটি দরজার আংশিক পোড়া ও বারান্দায় পোড়া চিহ্ন। বারান্দা দিয়ে একটি কক্ষে আগুন নিক্ষেপের চেষ্টা করায় দরজা কালো হয়ে গেছে। অন্যদিকে মারিয়া ইউনিয়ন পরিষদের একটি কক্ষের জানালা ভাঙা অবস্থায় পাওয়া গেছে। খবর পেয়ে কিশোরগঞ্জের প্রশাসন ও পুলিশের লোকজন ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে।

কিশোরগঞ্জ পোস্ট
কিশোরগঞ্জ পোস্ট
কিশোরগঞ্জ ১ আসনের ভোটকেন্দ্রে আগুন

কিশোরগঞ্জ-১ আসন (কিশোরগঞ্জ সদর) এর একটি ভোটকেন্দ্র আগুনে পুড়ে যাওয়ার ঘটনা ঘটেছে।  এটি হলো কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলার লতিবাবাদ ইউনিয়নের সাদুল্লারচর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোটকেন্দ্র। কিশোরগঞ্জ সদরের মারিয়া ইউনিয়ন পরিষদ ভোটকেন্দ্রটিতে জানালা ভাঙার অভিযোগ পাওয়া গেছে। গত শুক্রবার রাতের কোনো এক সময় দুর্বৃত্তরা এ ঘটনা ঘটায় বলে ধারণা করছে কিশোরগঞ্জ মডেল থানা পুলিশ। 

পুলিশ কিশোরগঞ্জ পোস্ট কে জানায়, আগুনে ভোটকেন্দ্রের বড় ধরনের কোন ক্ষতি হয়নি। ভোট কেন্দ্রের বাইরে থেকে আগুন দেওয়ার চেষ্টা করায় দরজার নিচের অংশ পুড়ে যায়। তবে ভেতরে কোনো কিছু পুড়েনি। অন্য আরেকটি ভোটকেন্দ্রের একটি কক্ষের জানালার গ্লাস ভেঙে ফেলেছে দুর্বৃত্তরা।

আজ শনিবার (৬ জানুয়ারি) সকালে কিশোরগঞ্জ সদররের সাদুল্লারচরের এলাকাবাসী ভোট কেন্দ্রে এসে দেখে, একটি দরজার আংশিক পোড়া ও বারান্দায় পোড়া চিহ্ন। বারান্দা দিয়ে একটি কক্ষে আগুন নিক্ষেপের চেষ্টা করায় দরজা কালো হয়ে গেছে। অন্যদিকে মারিয়া ইউনিয়ন পরিষদের একটি কক্ষের জানালা ভাঙা অবস্থায় পাওয়া গেছে। খবর পেয়ে কিশোরগঞ্জের প্রশাসন ও পুলিশের লোকজন ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে। 

সাদুল্লারচর এলাকার বাসিন্দা কায়সার সাদিক কিশোরগঞ্জ পোস্ট কে বলেন, ‘সকালে এলাকাবাসী বলাবলি করছিল স্কুলে কেউ আগুন দেওয়ার চেষ্টা করেছে। গিয়ে দেখি স্কুলের একটি দরজার আংশিক কালো হয়ে আছে। আমার মনে হয় আগুন বেশিক্ষণ জ্বলেনি।’ 

- Advertisement -

মারিয়া ইউনিয়নের বাসিন্দা প্রিন্স কিশোরগঞ্জ পোস্ট কে বলেন, ‘মানুষ বলাবলি করছিল ইউনিয়ন পরিষদের একটি কক্ষের জানালা ভেঙে ফেলেছে। পরে গিয়ে দেখি জানালার গ্লাসটি ভাঙা। কেউ ঢিল দিয়ে হয়তো ভেঙেছে। যারা এমন কাজ করেছে, তারা এইটা ভালো কাজ করেনি।’ 

কিশোরগঞ্জ মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ গোলাম মোস্তফা কিশোরগঞ্জ পোস্ট কে বলেন, ‘ভোটকেন্দ্র কিংবা বিদ্যালয়টির বারান্দা দিয়ে গামছার বা কাপড় জাতীয় কিছুর মাধ্যমে আগুন লাগানোর চেষ্টা করা হয়েছে। কিন্তু আগুন দিতে ব্যর্থ হয় দুর্বৃত্তরা। বারান্দা দিয়ে আগুন দেওয়ার চেষ্টা করে তারা পালিয়ে যায়। মূলত ভীতি সৃষ্টির জন্যে এ কাজটি করেছে ওরা। অন্যদিকে মারিয়া ইউনিয়ন পরিষদের একটি কক্ষের জানালা ভাঙা অবস্থায় পাওয়া গেছে। দুর্বৃত্তরা ঢিল মেরে জানালাটা ভেঙে ফেলেছে। গ্রাম পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে দুর্বৃত্তরা পালিয়ে যায়। তবে কারা এসব কাজ করেছে এখনো চিহ্নিত করা হয়নি। দুষ্কৃতকারীদের ধরতে কিশোরগঞ্জ মডেল থানা অভিযান চালাবে।

Subscribe

Subscribe to our newsletter to get our newest articles instantly!

ফলো করুন

সোশ্যাল মিডিয়াতে আমাদের সাথে থাকুন
জনপ্রিয় খবর
মতামত দিন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *